সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১২:৫৪ অপরাহ্ন
নিউজ ফ্লাশ
পঞ্চগড়ে মন্দিরে যাওয়ার পথে নৌকাডুবিতে শিশুসহ ২৪ জনের মৃত্যু হিজাব ইস্যুতে উত্তাল ইরান: নারীসহ ৭০০ বিক্ষোভকারী গ্রেফতার, নিহত ৩৫ শারদীয় দুর্গাপূজা: হিলি ইমিগ্রেশন দিয়ে যাত্রী পারাপার বেড়েছে ফেসবুকে ইসলাম ধর্ম নিয়ে অবমাননাকর মন্তব্য, বেরোবি শিক্ষার্থী আটক আগামী পহেলা ডিসেম্বর বিভাগীয় লেখক পরিষদ রংপুরের এক যুগ পূতি নগরজুড়ে চ্যাম্পিয়নদের ছাদ খোলা বাসে বিজয় শোভাযাত্রা খোলা বাসে বিলবোর্ড মাথায় লেগে আহত ফুটবলার ঋতুপর্ণার মাথায় দুই সেলাই এই ট্রফি আমাদের দেশের জনগণের জন্য রংপুরে জাপানি নাগরিক কুনিও হোশি হত্যা: ৪ জঙ্গির মৃত্যুদণ্ড বহাল দিনাজপুর বোর্ডের এসএসসি পরীক্ষার চার বিষয়ের পরীক্ষা স্থগিত

করোনায় নতুন শনাক্ত ১ হাজার ১১৬ জন, শনাক্তের হার পৌনে ৬ শতাংশ

এপ্লাস অনলাইন
  • আপডেট সময় : শনিবার, ৮ জানুয়ারী, ২০২২
দেশে ১৫ সপ্তাহ পর নমুনা বিবেচনায় কোভিড শনাক্তের হার ৫ শতাংশে উন্নীত হওয়ার পরদিনই তা পৌনে ৬ শতাংশ পেরিয়ে গেল। গত ২১ সেপ্টেম্বর সাড়ে ছয় মাস পরে রোগী শনাক্তের হার ৫ শতাংশের নিচে নেমেছিল। বিশ্বব্যাপী ভীতি ছড়ানো ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্টের প্রকোপের মধ্যে দেশে করোনার সংক্রমণ প্রতিদিন বাড়ছে।
শনিবার পরীক্ষার বিপরীতে রোগী শনাক্তের হার ছিল ৫ দশমিক ৭৯ শতাংশ। ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ১ জনের মৃত্যু হয়েছে। নতুন করে ১ হাজার ১১৬ জন রোগী শনাক্ত হয়েছে। করোনায় মাঝারি ঝুঁকিতে এলো বাংলাদেশ।
বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতে, কোনো এলাকায় করোনা সংক্রমণ হার ১০ শতাংশের বেশি হলে সেটিকে ‘উচ্চ ঝুঁকিপূর্ণ’, ৫-১০ শতাংশের মধ্যে হলে ‘মাঝারি ঝুঁকিপূর্ণ’ এবং ৫ শতাংশের নিচে হলে ‘স্বল্প ঝুঁকিপূর্ণ’ হিসেবে বিবেচনা করা হয়। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মানদণ্ড অনুযায়ী, টানা দুই সপ্তাহের বেশি সময় পরীক্ষার বিপরীতে রোগী শনাক্তের হার ৫ শতাংশের নিচে থাকলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আছে বলে ধরা হয়। এই হিসাবে দেশে তিন মাসের বেশি সময় জুড়ে করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ছিল এমনটা বলা যাচ্ছে। তবে দেশে করোনা সংক্রমণের গতি আবারো বেড়ে চলেছে। শুক্রবার
নমুনা পরীক্ষার বিপরীতে দৈনিক শনাক্তের হার বেড়ে ৫ দশমিক ৬৭ শতাংশ হয়। আগের ৬ দিন শনাক্তের হার যথাক্রমে ছিল ২ দশমিক ৪৩, ২ দশমিক ৯১, ৩ দশমিক ৩৭, ৩ দশমিক ৯১, ৪ দশমিক ২০ শতাংশ, ৪ দশমিক ৮৬ শতাংশ।
টানা ১৭ মাস পরে স্কুল কলেজ খুলে দেওয়া হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ে সশরীরে ক্লাস পরীক্ষা নেওয়া হচ্ছে। কিন্তু গত কয়েক দিন ধরে করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ািয় আবারো শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধের মতো সিদ্ধান্ত আসতে পারে এমন সম্ভবনার কথা আগেই জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় সশরীরে ক্লাস পরীক্ষা বন্ধ ঘোষণা করেছে। গতকাল এক অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, আমরা শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করতে চাই না। টিকা নিয়ে যেনও শিক্ষার্থীরা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আসে।  সেটিরও ব্যবস্থা করা হচ্ছে।  হয়ত একটু অসুবিধা হতে পারে যারা ১২ বছরের কম বয়সী তাদের জন্য। সে বিষয়গুলো নিয়েও আমরা সিদ্ধান্ত নেবো।
জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা বলছেন, দেশে করোনা পরিস্থিতি ভালোর দিকে যাচ্ছে। সংক্রমণ ও মৃত্যু কমার এই প্রবণতা ধরে রাখতে স্বাস্থ্যবিধি পুরোপুরি মেনে চলতে হবে। এর আগেও নিজেদের ভুলে টানা সাড়ে ৫ মাস করোনার ভয়াবহকাল পার করে বাংলাদেশ। প্রতিবেশি দেশ ভারতে করোনার ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট দ্রুত ছড়িয়ে পড়েছে। সেখানে করোনার তৃতীয় ঢেউ চলছে বলে বলছেন জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা। ইতোমধ্যে অস্ট্রেলিয়া, যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপের অনেক দেশেই করোনার সংক্রমণের ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতা দেখা যাচ্ছে। তাই তৃতীয় ঢেউয়ের শিকার না হয়, জনগণকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার ক্ষেত্রে দায়িত্বশীল আচরণ করতে হবে বলে তাদের মত।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই রকম আরো সংবাদ

এ প্লাস ডিজিকম সার্ভিস

© All rights reserved © 2020 Aplusnews.Live
Design & Development BY Hostitbd.Com

অনুমতি ছাড়া নিউজ কপি দন্ডনীয় অপরাধ। কপি করা যাবে না!!