শুক্রবার, ০৭ অক্টোবর ২০২২, ০৮:৩২ পূর্বাহ্ন

বছরজুড়ে লিড রংপুর,হিন্দুপল্লীতে অগ্নিসংযোগ ও ত্ব-হা নিখোঁজ ইস্যু ছিল আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে

এপ্লাস অনলাইন
  • আপডেট সময় : শুক্রবার, ৩১ ডিসেম্বর, ২০২১

অন্যান্য বছরের তুলনায় এবার রংপুর জেলা ছিল ঘটনাবহুল। বছরজুড়েই বিভিন্ন ঘটনায় দেশজুড়ে ছিল আলোচনায়। বিভিন্ন ইস্যুতে দেশ ছাপিয়ে বিশ্বমণ্ডলেও উঠে এসেছে রংপুরের নাম।

এর মধ্যে সবচেয়ে আলোচিত ছিল হিন্দুপল্লীতে অগ্নিসংযোগ ও লুটপাট,সমালোচিত ইসলামি বক্তা আবু ত্ব-হা নিখোঁজ,রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. নাজমুল আহসান কলিমুল্লাহর বিদায়,ধর্ষণের অভিযোগ পুলিশ কর্মকর্তা গ্রেপ্তারসহ নানা উল্লেখযোগ্য ঘটনা।

তবে সব কিছু ছাপিয়ে এখন নতুন বছর ২০২২ -এ সবার প্রত্যাশা সুন্দর আগামীর।

 

পীরগঞ্জে হিন্দুপল্লীতে অগ্নিসংযোগ

বছরের সবচেয়ে আলোচিত ঘটনা ছিল পীরগঞ্জের রামনাথপুর বড় করিমপুর কসবা হিন্দুপল্লীতে অগ্নিসংযোগ ও লুটপাটের ঘটনা।

কুমিল্লায় মন্দিরে ‘ধর্ম অবমাননার’ অভিযোগের জেরে ১৮ অক্টোবর রাতে হিন্দুপল্লীতে আগুন দেয় দুর্বৃত্তরা। সেই ঘটনা দেশের গণ্ডি পেরিয়ে বিশ্ব গণমাধ্যমেও আলোচিত হয়।

ওই ঘটনায় চার মামলায় ৭০ জনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। তাদের মধ্যে ৬০ জনকে রিমান্ডে নেয়া হয়।

ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন জাতীয় সংসদের স্পিকার, একাধিক মন্ত্রী, ভারতের সহকারী হাইকমিশনারসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক সংগঠনের নেতারা। ক্ষতিগ্রস্ত হিন্দু সম্প্রদায়ের মানুষজনকে ক্ষতিপূরণের পাশাপাশি নতুন ঘর তৈরি করে দেয়া হয়। তবে যে আতঙ্ক তৈরি হয়েছে তা কাটেনি এখনও।

ইসলামি বক্তা ত্ব-হা নিখোঁজ

রংপুরে ওয়াজ মাহফিল শেষে ঢাকার বাসায় ফেরার পথে ১০ জুন আবু ত্ব-হা নিখোঁজ হন বলে অভিযোগ ছিল তার পরিবারের। আবু ত্ব-হার পরিবারের পক্ষ থেকে বলা হচ্ছিল, ঢাকার গাবতলী থেকে তারা নিখোঁজ হন। আবু ত্ব-হার সঙ্গে নিখোঁজ হয়েছিলেন আরও তিন জন। এক সপ্তাহেরও বেশি সময় ধরে তাদের খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না।

তরুণ এই ইসলামি বক্তার নিখোঁজ হওয়ার পরপরই তোড়পাড় শুরু সোশ্যাল মিডিয়া। তার সন্ধান চেয়ে হ্যাশট্যাগ ব্যবহার করছে তার ভক্ত সমর্থকরা।

সপ্তাহখানেক নিখোঁজ থাকার পর সন্ধান মেলে রংপুরের আলোচিত-সমালোচিত বক্তা আবু ত্ব-হা মুহাম্মদ আদনানের। পুলিশের তথ্য অনুযায়ী ত্ব-হা নিজেই পারিবারিক কারণে আত্মগোপনে ছিলেন।

 

 

ভিসি কলিমুল্লাহর বিদায়, ক্যাম্পাসে আগরবাতি

 

দিনের পর দিন ক্যাম্পাসে না থাকা, অনিয়ম-দুর্নীতি, সকালে বিমানে এসে বিকেলে সেই বিমানে ঢাকায় ফেরা, ঢাকায় লিঁয়াজো অফিস খুলে নিয়োগ বাণিজ্য পরিচালনাসহ নানা অভিযোগ ছিল রংপুর বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. নাজমুল আহসান কলিমুল্লাহ।

উপাচার্য কলিমুল্লাহর মেয়াদ শেষ হয় ১৪ জুন। ওই দিনও তিনি ক্যাম্পাসে যাননি। ঢাকার লিয়াজোঁ অফিসে রাত ১০টার দিকে নতুন উপাচার্য অধ্যাপক হাসিবুর রশীদের কাছে দায়িত্ব হস্তান্তর করেন তিনি।

তার বিদায়ের দিনে বিশ্ববিদ্যালয়ের শেখ রাসেল মিডিয়া চত্বরে আগরবাতি জ্বালান শিক্ষার্থীরা। ক্যাম্পাসের জিরো পয়েন্টে কলিমুল্লাহর কুশপুত্তলিকা ঝুলিয়ে রাখা হয় উল্টো করে।

এ ছাড়া কেন্দ্রীয় মাঠে আতশবাজি ও মিষ্টি বিতরণ করেন শিক্ষার্থীরা। সবশেষে স্বাধীনতা স্মারক প্রাঙ্গণে কলিমুল্লাহর বিদায়ে ‘গণক্রন্দন’ কর্মসূচি পালন করা হয়।

 

এসআই পেয়ারুল হত্যা

নগরীর হারাগাছের সিগারেট কোম্পানি মোড় এলাকায় ২৪ সেপ্টেম্বর রাতে পারভেজ রহমান ওরফে পলাশ নামে এক মাদক ব্যবসায়ীর ছুরিকাঘাতে নিহত হন পুলিশের এক কর্মকর্তা। ওই মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেপ্তার করলে তিনি এসআই পেয়ারুল ইসলাম নামে ওই পুলিশ কর্মকর্তাকে ছুরিকাঘাত করেন। পরদিন দুপুরে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

এ ঘটনায় দুটি মামলা করেছেন হারাগাছ থানার উপপরিদর্শক জিল্লুর রহমান। পুলিশ প্রধানের নির্দেশে মামলা দুটি তদন্ত করছে পিবিআই।

 

বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে থানায় ভাঙচুর

 

রংপুরের হারাগাছ থানায় ১ নভেম্বর তাজুল ইসলাম নামে এক বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ ওঠে পুলিশের বিরুদ্ধে।

সেই ঘটনার জেরে ওই দিন সন্ধ্যায় হারাগাছ থানায় ব্যাপক ভাঙচুর চালান স্থানীয়রা। দফায় দফায় পুলিশের সঙ্গে তদের সংঘর্ষে আহত হন কয়েকজন পুলিশ সদস্যসহ অনেকে।

থানার উপপুলিশ পরিদর্শক আব্দুল খালেক পরে অজ্ঞাতপরিচয় ৩০০ জনকে আসামি করে মামলা করেন। সেই ঘটনা হাইকোর্টের নজরে আনা হলে তদন্তের নির্দেশ দেয়া হয়।

 

ধর্ষণ মামলায় পুলিশ কর্মকর্তা গ্রেপ্তার

 

রংপুরের হারাগাছায় স্কুলছাত্রীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ মামলায় রংপুর গোয়েন্দা পুলিশের এএসআই রায়হানুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

২৪ অক্টোবর ওই ছাত্রীর বাবা দুজনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতপরিচয় কয়েকজনকে আসামি করে হারাগাছ থানায় মামলা করেন। মামলাটি পরে পিবিআইতে হস্তান্তর করা হয়।

ওই মামলায় ২৮ অক্টোবর পুলিশ লাইন্স থেকে এএসআই রায়হানকে গ্রেপ্তার করা হয়। মামলায় পরে দুই নারীসহ আরও ৪ আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়।

লিখেছেন- রফিকুল ইসলাম,নিউজ বাংলা,রংপুর

 

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই রকম আরো সংবাদ

© All rights reserved © 2020 Aplusnews.Live
Design & Development BY Hostitbd.Com

অনুমতি ছাড়া নিউজ কপি দন্ডনীয় অপরাধ। কপি করা যাবে না!!