শনিবার, ০১ অক্টোবর ২০২২, ০৭:৪৭ পূর্বাহ্ন

বাংলাদেশ কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি (বাকবিশিস) রংপুর জেলা ও মাহানগর আলোচনা, র‌্যালী

প্রতিবেদকের নাম:
  • আপডেট সময় : সোমবার, ৫ অক্টোবর, ২০২০

শিক্ষক সংকটে নেতৃত্বদাতা, ভবিষ্যতের রূপদর্শী এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে সারা বিশ্বের ন্যায় রংপুর প্রেস ক্লাবে বাংলাদেশ কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি (বাকবিশিস), রংপুর এর উদ্যোগে পালিত হয়েছে বিশ্ব শিক্ষক দিবস। ৫/১০/২০২০ সোমবার দুপুরে রংপুর জেলা ও মহানগর বাকবিশিস আয়োজিত আলোচনা অনুুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন রংপুর বাকবিশিস মহানগর সভাপতি সহকারী অধ্যাপক মো. নবীব হোসেন লাভলু, মূল বক্তব্য উপস্থাপন করেন জেলা সভাপতি অধ্যক্ষ আব্দুল ওয়াহেদ মিঞা,সমগ্র অনুষ্ঠানটি সঞ্চালন করেন জেলা সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক রওশানুল কাওসার সংগ্রাম।

করোনা কালিন দুর্যোগে যখন সারাদেশের শিক্ষা ব্যবস্থা ভংগুর, শিক্ষার্থী ও শিক্ষকবৃন্দ যখন তাদের কর্তব্য কাজে অসহায়, ঠিক তেমনি মুহূর্তে শাণিত চেতনায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে রংপুর প্রেসক্লাবে আহুত সভায় আরো বক্তব্য রাখেন মহানগর সম্পাদক অধ্যক্ষ আব্দুর রউফ, অধ্যাপক মো.আব্দুল বাতেন, অধ্যক্ষ শরীফুজ্জামান বুলু,অধ্যক্ষ হাসান ইমাম শামীম,অধ্যাপক ময়েন উদ্দিন শাহ,অধ্যাপক আনোয়ারুল ইসলাম পেয়ারা,অধ্যাপক জাকিয়া সুলতানা প্রমুখ।

একজন শিক্ষক জতি গঠনের কারিগর, সেই শিক্ষকরা আজও আর্থিক ও সামাজিক ভাবে অবহেলিত, অথচ মানসন্মত শিক্ষার জন্য চাই আর্থিক সচ্ছলতা ও সামাজিক মর্যাদা । তাই অনতি বিলম্বে শিক্ষক সমাজকে তাদের যোগ্য মর্যাদায় আসীন করতে হবে। নেতৃবৃন্দ তাদের বক্তৃতায় বৈষম্যহীন বিজ্ঞানমনষ্ক শিক্ষা ও শিক্ষা ব্যবস্থা জাতীয়করণে সরকারের প্রতি জোর দাবি জানান। সেই সাথে বর্তমান বৈশ্বিক দুর্যোগ মোকাবেলায় দেশের শিক্ষা ব্যবস্থায় স্বত্ত্বর কাঠামোগত উন্নয়ণের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের দোরগোড়ায় শিক্ষা পৌছে দিতে প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।

নেতৃবৃন্দ আরো জানান, বিশ্ব শিক্ষক দিবস শিক্ষকদের চেতনা জাগরণের দিবস, এই দিবসটি পালনের মধ্য দিয়ে শিক্ষক সমাজ নতুন উদ্যমে শাণিত হন, ঐক্যের বন্ধনকে দৃঢ় করেন। তাদের এই ঐক্য শিক্ষক সমাজের স্বার্থ সংরক্ষণে অনুঘটক হিসেবে কাজ করে। কিন্তু দুঃখজনক হলেও সত্য যে, শিক্ষা প্রশাসন এই দিবসটি পালনে শুধু উদাসীনই নয় বরং এই আন্তর্জাতিক দিবসটিতে অধ্যক্ষ মহাদয়দের তড়ড়স গববঃরহম ডেকে আজকের অনুষ্ঠানকে বাধাগ্রস্ত করেছেন; আমাদের আহত করেছেন। এজাতীয় চক্রান্তের বিরুদ্ধে আমাদের সজাগ থাকতে হবে। আগামী দিনে শিক্ষা ব্যবস্থার কাঠামোগত আধুনিকায়ণ সহ শিক্ষকদের পুর্নাঙ্গ বাড়িভাড়া, অনুপাত প্রথার ন্যায় কালাকানুন বাতিল – তথা শিক্ষা ব্যবস্থা জাতীয়করণে বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তোলার আহ্বাণ জানানো হয়। আলোচনা শেষে একটি শোভাযাত্রা শহর প্রদক্ষিণ করে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই রকম আরো সংবাদ

এ প্লাস ডিজিকম সার্ভিস

© All rights reserved © 2020 Aplusnews.Live
Design & Development BY Hostitbd.Com

অনুমতি ছাড়া নিউজ কপি দন্ডনীয় অপরাধ। কপি করা যাবে না!!