মঙ্গলবার, ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ১২:২৩ পূর্বাহ্ন
নিউজ ফ্লাশ
তুরস্ক ও সিরিয়ায় ভূমিকম্প: মৃতের সংখ্যা ২৩শ ছাড়িয়েছে রংপুরে জাতীয় গ্রন্থাগার দিবস পালিত জাপা চেয়ারম্যান হিসেবে জি এম কাদেরের দায়িত্ব পালনে বাধা নেই মিত্থুকের দল হলো বিএনপি, মিথ্যাচারই তাদের সম্পদ: মির্জা আজম ‘সরকারের পতন না হওয়া পর্যন্ত গন আন্দোলন চলবে’ সীমান্তে তারকাঁটারের বেড়া নির্মাণের চেষ্টা বিএসএফের,বিজিবির বাধায় দুই বাহিনীর মধ্যে উত্তেজনা ‘২৭ বছরের ডিউটিকালে রংপুরে আমি তিনবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে গাড়িতে বহন করেছিলাম’ ফেসবুক পোস্টে হা হা রিঅ্যাক্ট দেওয়ায় কলেজ ক্যাম্পাসে বন্ধুকে ছুরিকাঘাত শপথ নিলেন নব নির্বাচিত রংপুর সিটি মেয়র মোস্তফা ও কাউন্সিলররা পাকিস্তানে মসজিদে আত্মঘাতী বোমা হামলায় নিহত ৩২

মিয়ানমারে সেনা বিরোধী বিক্ষোভের খবর প্রচারের কারণ ১০ সাংবাদিক আটক

প্রতিবেদকের নাম:
  • আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ২ মার্চ, ২০২১

সেনা বিরোধী বিক্ষোভের খবর প্রচারের কারণ ১০ সাংবাদিককে আটক করেছে মিয়ানমার। এদিকে মঙ্গলবার দক্ষিণপূর্ব এশিয়ার দেশগুলোর জোট আসিয়ান দেশগুলোর পররাষ্ট্র মন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠকে বসতে যাচ্ছে দেশটির জান্তা সরকার।

মিয়ানমারের বিভিন্ন শহরে সামরিক সরকারবিরোধী এই বিক্ষোভের খবর সংগ্রহ করছেন সাংবাদিকরা। এরিমধ্যে সোমবার বার্তা সংস্থা এপি’সহ বিভিন্ন গণমাধ্যমের ১০ সাংবাদিককে আটক করেছে জান্তা সরকার। তবে এখনো তাদের বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ গঠন করা হয়নি। স্থানীয় গণমাধ্যমগুলো জানাচ্ছে, বিক্ষোভের খবর প্রচারের কারণে গেল ১৪ই ফেব্রুয়ারি থেকে এ পর্যন্ত মোট ২৫ জন গণমাধ্যমকর্মীকে আটক করেছে দেশটির আইন শৃঙ্খলা বাহিনী।

আটকের ঘটনায় গণমাধ্যমকর্মীরা ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, সাংবাদিকরা কোনো বিক্ষোভ করেননি। কেবল নিজেদের দায়িত্ব পালন করছেন। পেশাগত দায়িত্বের কারণে কাউকে অন্যায়ভাবে আটক গ্রহণযোগ্য নয়।

আইন শৃঙ্খলাবাহিনী ব্যাপক দমন অভিযানের পরও, আবারো রাস্তায় নেমেছে গণতন্ত্রকামীরা। ইয়াঙ্গুন ও দাওয়েয়িতে বিক্ষোভকারীদের দমনে টিয়ার শেল ছোঁড়ে পুলিশ।

মিয়ানমারে সেনা অভ্যূত্থানের পর থেকে চলমান বিক্ষোভ দমনে শুরু থেকেই কঠোর আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। চলছে ধরপাকড়, নিহত হয়েছে এ পর্যন্ত ১৮ জন।

এদিকে আসিয়ান দেশগুলোর পররাষ্ট্র মন্ত্রীদের সঙ্গে আজ বৈঠকে বসতে যাচ্ছে মিয়ানমারের সেনা সরকার। এক ভিডিও কলের মাধ্যমে এই আলোচনা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। এর আগে সোমবার সিঙ্গাপুরের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বৈঠকে মিয়ানমারের নির্বাচিত নেত্রী অং সান সু চি এবং জান্তা সরকারের মধ্যে আলোচনায় উৎসাহ যোগানো হবে। তবে বিক্ষোভকারীদের পক্ষ থেকে এই বৈঠক নিয়ে সন্দেহ পোষণ করে বলা হয়েছে এর মধ্য দিয়ে ক্ষমতা দখলকারীরা বৈধতা পেতে পারে।

এর আগে সেনা অভ্যুত্থান ও আটকের ২৮ দিন পর, সোমবার প্রথম দেখা যায় মিয়ানমার নেত্রী অং সান সু চিকে। ভিডিও কনফেরেন্সে নেপিদোর আদালতের শুনানিতে যুক্ত হন তিনি। এদিন তার বিরুদ্ধে আরো দুটি অভিযোগ গঠন করা হয়। সু চির পরবর্তী শুনানি হবে ১৫ মার্চ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই রকম আরো সংবাদ

এ প্লাস ডিজিকম সার্ভিস

© All rights reserved © 2020 Aplusnews.Live
Design & Development BY Hostitbd.Com

অনুমতি ছাড়া নিউজ কপি দন্ডনীয় অপরাধ। কপি করা যাবে না!!